Last update
Loading...

কাশ্মিরে রমজান মাসে সামরিক অভিযান বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত: ইতিবাচক প্রতিক্রিয়া

ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে কাশ্মিরে রমজান মাসে সামরিক অভিযান বন্ধ রাখার সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি ও সাবেক মুখ্যমন্ত্রী ওমর আবদুল্লাহ।
মেহবুবা মুফতি ওই সিদ্ধান্তকে ঐতিহাসিক পদক্ষেপ বলে অভিহিত করে বিশেষভাবে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিংকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন। তিনি সংশ্লিষ্ট সকলপক্ষকে ওই পদক্ষেপের জন্য ইতিবাচক সাড়া দেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন।
কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে এ সংক্রান্ত ঘোষণার পরে মেহবুবা মুফতি বলেন, ‘আমি আন্তরিকভাবে রমজান মাসে সংঘর্ষ বিরতিকে স্বাগত জানাচ্ছি এবং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও রাজনাথ সিংকে ওই ইস্যুতে ব্যক্তিগত হস্তক্ষেপের জন্য ধন্যবাদ জানাচ্ছি। আমি ওইসব দল ও তাদের নেতাদের প্রতি কৃতজ্ঞ যারা সর্বদলীয় বৈঠকে অংশ নিয়ে ঐক্যবদ্ধভাবে সংঘর্ষ বিরতির দাবি করেছিলেন। এরফলে গত তিনদশক ধরে অনিশ্চিয়তা, সহিংসতার মুখে পড়া রাজ্যবাসীকে ওই সিদ্ধান্ত অনেক সাহায্য করবে।'
জম্মু-কাশ্মিরের বিরোধী দলনেতা ওমর আবদুল্লাহ বলেছেন, সন্ত্রাসীরা যদি এ ব্যাপারে ইতিবাচক সাড়া না দেয় তাহলে বুঝতে হবে তারা জনগণের শত্রু।
নামায আদায় করছেন কাশ্মিরের নারীরা
সিপিএম বিধায়ক মুহাম্মদ ইউসুফ তারিগামি ওই পদক্ষেপকে স্বাগত জানিয়ে বলেছেন, আগামী ১৯ মে প্রধানমন্ত্রী কাশ্মির সফর করবেন, আমরা আশা করছি তিনি অর্থপূর্ণ সংলাপ প্রক্রিয়ার জন্য একটি পরিকল্পনা ঘোষণা করবেন।
তিনি বলেন, শুধুমাত্র এই মাসের জন্য নয়, আমরা আশা করব সহিংসতা চিরতরে শেষ হবে এবং এটি অর্থপূর্ণ সংলাপ প্রক্রিয়া শুরু করতে সাহায্য করবে।
কেন্দ্রীয় সরকার গতকাল (বুধবার) নিরাপত্তা বাহিনী রমজান মাসে কোনো অভিযান চালাবে না বলে জানিয়েছে। নয়াদিল্লিতে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক মুখপাত্র বলেন, ওই পদক্ষেপ শান্তিপ্রিয় মুসলিমদের শান্তিপূর্ণ পরিবেশে রমজান পালন করার জন্য সাহায্য করবে। কিন্তু নিরাপত্তা বাহিনীর অধিকার আছে যদি আক্রমণ হয় অথবা নিরীহ মানুষজনের নিরাপত্তা সঙ্কট দেখা দেয় তাহলে তারা পাল্টা পদক্ষেপ করবে।
মুসলিম ভাই-বোনদের নির্বিঘ্নে রমজান পালনে সাহায্য করতে ওই পদক্ষেপে সমস্ত শান্তিপ্রিয় মানুষই সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দেবেন বলে কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে আশাপ্রকাশ করা হয়েছে।
এদিকে, গেরিলা সংগঠন লস্কর-ই তাইয়্যেবার পক্ষ থেকে কেন্দ্রীয় সরকারের ওই পদক্ষেপকে ‘নাটক’ বলে অভিহিত করা হয়েছে।
নরেন্দ্র মোদি- ওমর আবদুল্লাহ-মেহবুবা মুফতি

0 comments:

Post a Comment