Last update
Loading...

রোহিঙ্গা ইস্যুতে নিরপেক্ষ থাকবে বেইজিং : প্রশ্ন এড়িয়ে গেলেন রাষ্ট্রদূত

রোহিঙ্গা সংকটে বেইজিংয়ের অবস্থান সংক্রান্ত প্রশ্ন এড়িয়ে গেলেন ঢাকায় নব নিযুক্ত চীনের রাষ্ট্রদূত ঝ্যাং ঝু। গতকাল বিকালে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলমের সঙ্গে প্রথম সৌজন্য সাক্ষাতের পর উপস্থিত সাংবাদিকরা এ বিষয়ে জানতে চান। রাষ্ট্রদূত প্রশ্নে জবাব না দিয়ে বলেন, সব জিজ্ঞাসার জবাব দিবেন আগামী ২১শে মার্চ। ওই দূতাবাসে তার প্রথম সংবাদ সম্মেলন হবে। এত সব মিডিয়াকে আগাম আমন্ত্রণও জানান দিনি। তবে রাতে এ নিয়ে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তরফে প্রচারিত আনুষ্ঠানিক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছেÑ রাষ্ট্রদূত প্রতিমন্ত্রীকে জানিয়েছেন মিয়ানমার ও বাংলাদেশ উভয়েই চীনের বন্ধুপ্রতিম প্রতিবেশী। রোহিঙ্গা ইস্যুতে নিরপেক্ষ ভূমিকা পালন করবে বেইজিং। আলোচনায় চীনের রাষ্ট্রদূতের কাছে এই সমস্যা সমাধানের জন্য রাজনৈতিক সমর্থন চান শাহরিয়ার আলম। চীনের রাষ্ট্রদূত গত সপ্তাহে প্রেসিডেন্ট আব্দুল হামিদের কাছে তার পরিচয়পত্র পেশের মধ্য দিয়ে ঢাকায় আনুষ্ঠানিকভাবে দায়িত্ব নিয়েছেন। রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া ব্যাহত করার জন্য মিয়ানমারের বিভিন্ন পদক্ষেপের বিষয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করলে রাষ্ট্রদূত ঝ্যাং ঝু প্রতিমন্ত্রীকে জানান, চীন মিয়ানমারের সঙ্গে যোগাযোগ রাখছে এবং রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে কাজ করার চেষ্টা করছে। চীনের অর্থায়নে বিভিন্ন অবকাঠামো প্রকল্প দ্রুত শেষ করার আহ্বান জানান পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী। তিনি বিশেষ করে পদ্মা সেতুর রেল সংযোগ এবং ঢাকা অঞ্চলে পাওয়ার সিস্টেম নেটওয়ার্ক শক্তিশালীকরণ প্রকল্প দু’টি দ্রুত শেষ করার আহ্বান জানান। বৈঠক শেষে উপস্থিত সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপে রাষ্ট্রদূত বাংলাদেশের সঙ্গে চীনের কৌশলগত অংশীদারিত্বপূর্ণ সম্পর্ক এগিয়ে নেয়ার আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

0 comments:

Post a Comment