Last update
Loading...

শহীদ মিনারের বেদিতে মঞ্চ জুতা পায়ে অতিথিরা

জয়পুরহাটের আক্কেলপুর সদরের ফজরউদ্দিন (এফইউ) উচ্চবিদ্যালয় মাঠে শহীদ মিনারের বেদিতে মঞ্চ বানিয়ে গতকাল সোমবার বই উৎসব করেছে বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। ওই মঞ্চে অতিথি-শিক্ষক সবাই জুতা পায়েও ওঠেন। এতে অনেকে ক্ষুব্ধ হন। বই উৎসবে গিয়ে দেখা যায়, বিদ্যালয়ের মাঠে শহীদ মিনারের বেদিতে মঞ্চ বানানো হয়েছে। সেখানে টেবিলের ওপর নতুন বই রাখা হয়েছে।
বেলা ১১টার দিকে অনুষ্ঠানের অতিথিরা একে একে সবাই জুতা পায়ে মঞ্চে উঠে চেয়ারে বসেন। বই বিতরণ অনুষ্ঠানে বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি ও উপজেলা আওয়ামী লীগের জ্যেষ্ঠ সহসভাপতি সাদেকুর রহমান সভাপতিত্ব করেন। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কামরুজ্জামান কমল, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) দায়িত্বে থাকা সহকারী কমিশনার (ভূমি) তাহমিনা রহমান, পৌর মেয়র উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম মাহফুজ চৌধুরী, জেলা পরিষদের সদস্য আবদুর রহিম, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা জিল্লুর রহমান, বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক আবদুল মতিন প্রমুখ। এ ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করে মুক্তিযোদ্ধা ও সাংবাদিক রাজেন্দ্র প্রসাদ আগরওয়ালা বলেন, ‘আমি বিদ্যালয়ের বই উৎসবের অনুষ্ঠানে গিয়ে দেখি শহীদ মিনারের বেদিতে মঞ্চ বানানো হয়েছে। অতিথি-শিক্ষক সবাই মঞ্চে জুতা পায়ে বসে আছেন। আমাকে মঞ্চে ডাকা হয়েছিল। শহীদ মিনার অবমাননা দেখে মঞ্চে উঠিনি।’ এটা বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের অজ্ঞতা নাকি ধৃষ্টতা, তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন তিনি। এ ব্যাপারে জানতে চাইলে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মতিন বলেন, ‘আগামীতে আমরা আর শহীদ মিনারের বেদিতে মঞ্চ করব না। এটা আমাদের ভুল হয়েছে।’ তবে বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি সাদেকুর রহমান বলেন, ‘শহীদ মিনারের বেদিতে মঞ্চ বানানো হলেও সেখানে কার্পেট বিছানো ছিল। এ কারণে শহীদ মিনারের অসম্মান হয়নি।’ পৌর মেয়র গোলাম মাহফুজ চৌধুরী বলেন, ‘আমরা মঞ্চ হিসেবে সেখানে উঠেছি। কিন্তু সেখানে শহীদ মিনার ছিল কি না তা জানি না। যদি সেখানে শহীদ মিনার থেকে থাকে, সেই দায় বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের।’

0 comments:

Post a Comment