Last update
Loading...

সাত এনার্জি ড্রিংকসের ৫টিতেই অতিরিক্ত ক্যাফেইন

দেশে প্রচলিত এমন সাত এনার্জি ড্রিংকসের পাঁচটিতে মাত্রাতিরিক্ত ক্যাফেইনের উপস্থিতি পাওয়া গেছে। বাজারে প্রাপ্ত সাত কোম্পানির এনার্জি ড্রিংকস দৈব চয়নের মাধ্যমে সংগ্রহ করে বাংলাদেশ ফুড সেফটি ল্যাবরেটরি মাত্রাতিরিক্ত ক্যাফেইনের উপস্থিতি পায়। ‘শক্তি বাড়বে’ এমন বিজ্ঞাপনে আকৃষ্ট হয়ে প্রধানত তরুণ ও যুবক এসব এনার্জি ড্রিংকস পান করে। অনেকেই দৈনিক দুই থেকে তিন ক্যান পর্যন্ত এনার্জি ড্রিংকস পান করে। কিন্তু শক্তির পরিবর্তে এদের অনেককেই পেয়ে বসেছে নিস্তেজতা বা হতাশা। এনার্জি ড্রিংকস পানকারীদের অনেকেই এখন অস্থিরতায় ভুগছে, ঘুম হয় না অনেকের। বাংলাদেশে কোমল পানীয়ে ক্যাফেইনের মাত্রা কত থাকবে তা সুনির্দিষ্ট করে বলে দেয়া না হলেও আমেরিকান ফুড অ্যান্ড ড্রাগ অ্যাডমিনিস্ট্রেশন (ইউএসএফডিএ) একটি মাত্রা নির্ধারণ করে দিয়েছে। এফডিএর একজন প্রাপ্তবয়স্কের জন্য প্রতিদিন ২০০ মিলিগ্রাম পর্যন্ত ক্যাফেইন নিরাপদ বলে নির্দিষ্ট করে দিয়েছে। এর বেশি পান করা হলে শরীরে এর প্রতিক্রিয়া দেখা দেবে। বাংলাদেশ ফুড সেফটি ল্যাবরেটরির বাজারের সাত ব্র্যান্ডের পাঁচ এনার্জি ড্রিংকসেই সর্বোচ্চ ৭০০ মিলিগ্রাম পর্যন্ত ক্যাফেইন পেয়েছে। এসব ড্রিংকসে অতিরিক্ত ক্যাফেইনের সাথে মাত্রাতিরিক্ত চিনির উপস্থিতিও রয়েছে। রামপুরার বনশ্রী আবাসিক এলাকায় রাতে এক যুবক বাজারের একটি ব্র্যান্ডের এনার্জি ড্রিংকস পান করছিলেন। ৩০ থেকে ৩৫ বছর বয়সী এ যুবক কেন এনার্জি ড্রিংকস পান করছেন জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি জানান, ‘আমি অনেক রাইত পর্যন্ত রিকশা চালাই। শইলডায় অনেক বেশি শক্তি দরহার, এই কারণে খাইতাছি।’ এ ড্রিংকস পান করলেই যে শক্তি পাওয়া যাবে, তা বুঝলেন কিভাবে? প্রশ্ন করা হলে তিনি জানান, ‘দেহেন না টিভিতে এড দেয় কী বিশাল শক্তি পায় এই এইডা খাইয়া। এই কারণে খাইতাছি।’ এটি পান করলে কি শক্তি পান? উত্তরে রিকশাওয়ালা একটু হেসে জানান, শক্তি পাই। পরথম ভালোই পাইতাম। কিন্তু এখন ভোর রাইত পর্যন্ত সজাগ থাকি, ঘুম আহেনা।’ নরসিংদী জেলার শিবপুর উপজেলা ইটাখোলা এলাকার হাইস্কুলের ছাত্র কিশোর সফিক জানিয়েছে, সে প্রতিদিন একটি করে এনার্জি ড্রিংকস পান করে। আগে রাতে পড়তে পারত না ঘুমের জন্য।
এখন তার ঘুম পায় না। অনেক রাত জেগে পড়তে পারে। সফিক আরো জানায়, এটি না খাইলে ভালো লাগে না, পড়তে পারি না। এখন খাইলেই পড়তে পারি। আগে এমন ছিল না। একটু চেষ্টা করলেই ঘুম তাড়িয়ে পড়তে পারতাম কিন্তু এখন পারি না।’ বাংলাদেশ ফুড সেফটি ল্যাবরেটরির একজন কর্মকর্তা নাম প্রকাশ না করার শর্তে জানিয়েছেন, এনার্জি ড্রিংকসে অতিরিক্ত ক্যাফেইন দেয়া হয় পানকারীদের মধ্যে ড্রিংকসকে জনপ্রিয় করে রাখার জন্য। এটি পান করলে পানকারী যেন দ্রুত ফল পায় এ জন্য সহনীয় মাত্রার চেয়ে বেশি পরিমাণে ক্যাফেইন দেয়া হচ্ছে। এটি স্বাস্থ্যের জন্য ভালো না। তিনি এফডিএকে উদ্ধৃত করে বলেন, এফডিএ অতিরিক্ত ক্যাফেইন পান করলে কিছু স্বাস্থ্য ঝুঁকির কথা জানিয়েছে। এফডিএ অনুসারে, অতিরিক্ত ক্যাফেইন পান করলে লিভারে অতিরিক্ত চর্বি জমে যায়, হৃৎপিণ্ডে রক্ত চলাচলকারী ধমনীর রক্ত চলাচল ধীর করে দেয়। এ ছাড়া অতিরিক্ত ক্যাফেইন খেলে বুক ধড়ফড়ানি, অনিয়মিত হৃদস্পন্দন, উচ্চ রক্তচাপ, ঘুমের ব্যাঘাত হয়। অতিরিক্ত ক্যাফেইন পান করলে শরীরে টান টান উত্তেজনা দেখা দেয়, কিন্তু অনবরত পান করলে একসময় শরীরের কর্মক্ষমতা হ্রাস পায়। এ ছাড়া মায়ো ক্লিনিক থেকে প্রাপ্ত তথ্যে জানা গেছে, অতিরিক্ত ক্যাফেইন পান করলে মাইগ্রেনজনিত মাথাব্যথা, ইনসোমনিয়া, স্নায়ুবিক দুর্বলতা, বিরক্তি ভাব, অস্থিরতা, প্রায় প্রস্রাব হওয়া অথবা প্রস্রাব নিয়ন্ত্রণে অসমর্থ হয়ে যান পানকারী।

0 comments:

Post a Comment