Last update
Loading...

'বিপজ্জনক' খাবারের চ্যালেঞ্জ নিয়ে সতর্কবাণী

চীনে বৈদ্যুতিক বাতির মতো আকৃতির মিষ্টি, বা ড্রিল মেশিনের মাথায় বসানো ভুট্টার ছড়া খাওয়া - এরকম বিচিত্র সব 'অনলাইন চ্যালেঞ্জের' হিড়িক পড়ার পর ডাক্তাররা লোকজনকে সতর্ক করে দিয়েছেন। শিবু অনলাইন নামে একটি সংবাদ মাধ্যম জানাচ্ছে, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারকারীদের মধ্যে একটি বিপজ্জনক অনলাইন চ্যালেঞ্জ ছড়িয়ে পড়েছে। সামাজিক মাধ্যম ব্যবহারকারীরা এক ধরণের টফি-জাতীয় মিষ্টি কিনছে যা চিনি দিয়ে তৈরি এবং এর আকৃতি বৈদ্যুতিক বাতির মতোই বড়, যার ব্যাস ছয় সেন্টিমিটার। অনেকেই হাঁ করে এই মিষ্ট মুখে ভরার চেষ্টার ছবি বা ভিডিও পোস্ট করছে। তারা এই বাল্ব-আকৃতির মিষ্টি তাদের মুখে ভরতে পারে কিনা - এটাই হলো চ্যালেঞ্জ। কিন্তু ডাক্তাররা এই চ্যালেঞ্জে অংশ না নেয়ার জন্য লোকজনের প্রতি সতর্ক্ববাণী উচ্চারণ করে বলছেন, এর ফলে এই মিষ্টি গলায় আটকে যাওয়া বা শ্বাসরোধের মত বিপদ ঘটতে পারে।
এ ছাড়া এতে এতো বেশি মাত্রায় চিনির রয়েছে যা ডায়াবেটিক রোগীদের জন্য ক্ষতিকর হতে পারে। ডা. ঝ্যাং জিনান নামে একজন চিকিৎসক বলছেন, সাধারণত মানুষের মুখ চার সেন্টিমিটার প্রশস্ত হয়। কিন্তু এই বাল্ব-আকৃতির ক্যান্ডির ব্যাস ৬ সেন্টিমিটার। খাবার নিয়ে বিপজ্জনক অনলাইন চ্যালেঞ্জ বিষয়ে ডাক্তারের সতর্ক করে দেয়া এই প্রথম নয়। ২০১৬ সালের জুলাই মাসে 'ঘুরন্ত ভুট্টার ছড়া' নামে একটি চ্যালেঞ্জ চালু হওয়ার পর এটি নিয়েও মিডিয়ায় সতর্কবাণী দেয়া হয়েছিল। চ্যালেঞ্জটা হলো, একটি চলন্ত ড্রিল মেশিনের মাথায় একটি রান্না-করা ভুট্টার ছড়া বসিয়ে দেয়া হবে - এবং সেই দ্রুতবেগে ঘুরন্ত অবস্থাতেই ভুট্টার ছড়াটি খেতে হবে। ব্যবহারকারীরা বলেন, এটা অত্যন্ত বিপজ্জনক। একবার একটি ভিডিও বের হয় যাতে দেখা যায় যে ঘুরন্ত ভুট্টা খেতে গিয়ে ড্রিল মেশিনের খোঁচায় একজনের সামনের পাটির একটি দাঁত খসে পড়েছে। আরেক ভিডিওতে দেখা গেছে, এক মহিলার চুল পেঁচিয়ে গিয়ে মাথা থেকে খানিকটা চুল উঠে গেছে।

0 comments:

Post a Comment