Last update
Loading...

ফল খেয়ে হাসপাতালে জয়া!

শিশুরা চকোলেট খেতে ভালোবাসে। মিষ্টিজাতীয় সামগ্রীর প্রতি তাদের বাড়তি আগ্রহ থাকে। তবে চিত্রনায়িকা জয়া আহসান যখন ছোট ছিলেন তখন থেকেই ভেষজ ফল খাওয়া ছিল তার নেশা। মজার ব্যাপার হল, এখনও সে নেশা ত্যাগ করতে পারেননি তিনি। সম্প্রতি মাছরাঙা টেলিভিশনের জন্য ঈদের বিশেষ অনুষ্ঠান ‘ম্যড ক্যফে’র আমন্ত্রিত অতিথি হয়ে এসেছিলেন জয়া। অনুষ্ঠানজুড়েই নিজের পাগলামোর নমুনা তুলে ধরেন তিনি। জয়া বলেন, ‘বনে-জঙ্গলে কত ধরনের ফলই তো থাকে, ছোটবেলা থেকেই এ ধরনের ফলের প্রতি ছিল আমার লোলুপ দৃষ্টি। যে ফল সবাই খায় না, সে ফল আমাকে খেতেই হবে। এই উদ্ভট নেশার মাশুলও অবশ্য আমাকে গুনতে হয়েছে। বিষযুক্ত ফল খেয়ে হাসপাতালেও যেতে হয়েছে। যদিও মাথা থেকে ভেষজ ফল খাওয়ার নেশা এখনও যায়নি।’ তিনবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত এ অভিনেত্রী জানান, আবেগী দৃশ্যে কান্নার অভিনয় করার জন্য তিনি কখনও গ্লিসারিন ব্যবহার করেননি। কারণ গ্লিসারিনে তার অ্যালার্জি বাড়ে। অভিনীত চরিত্রের কাছে আত্মসমর্পণ করে প্রকৃতিগতভাবেই সব নাটকে এবং চলচ্চিত্রে কেঁদেছেন জয়া। তানভীর হোসেন প্রবালের উপস্থাপনায় অনুষ্ঠানটি মাছরাঙা টেলিভিশনে ঈদের ৩য় দিন, রাত ১০টা ৩০ মিনিটে প্রচার হবে। প্রসঙ্গত, এ মুহূর্তে জয়া অভিনয় করছেন সামুরাই মারুফের ‘আজকের দিনটা ভালো কাটলে সারা জীবন ভালো কাটবে’ ছবিতে। গাজীপুরে ছবিটির শুটিং চলছে।

0 comments:

Post a Comment