Last update
Loading...

ধর্ষকদের শায়েস্তা করতে এবার অভিনব জুতা

এবার ধর্ষণ থেকে বাঁচতে মেয়েদের হাতিয়ার হতেই পারে এলেক্ট্রো শু। এই অভিনব আত্মরক্ষার হাতিয়ারটি ১৭ বছরের এক কিশোরের মস্তিষ্ক প্রসূত। ভারতের হায়দরাবাদের সিদ্ধার্থ মন্ডলার বানানো এই জুতোটির পিছনে রয়েছে স্কুলে পড়ে পদার্থবিদ্যার জাদু এবং কিছু বেসিক কোডিং স্কিল। কীভাবে কাজ করবে ইলেক্ট্রো শু, তার ব্যাখ্যা দিতে গিয়ে সিদ্ধার্থ জানায়, এই জুতোতে রয়েছে একটি বিশেষ ধরনের সার্কিট বোর্ড। হাঁটার উপর নির্ভর করবে এর চার্জিং প্রক্রিয়া।
অর্থাত্‍, যিনি যত বেশি হাঁটবেন এই জুতো পরে, তত বেশি চার্জ স্টোর থাকবে এর ব্যাটারিতে। বৈজ্ঞানিক পরিভাষায় একে ‘পিয়েজোইলেক্ট্রিক এফেক্ট’ বলে। কোনও মহিলাকে কেউ আক্রমণ করলে এই জুতো পরা পা সেই দুষ্কৃতির শরীরে শুধু ছোঁয়াতে হবে। তাহলেই সেই ব্যক্তির শরীরে ছড়িয়ে পড়বে ০.১ এএমপি তড়িত প্রবাহ। শুধু তাই নয়, সঙ্গে সঙ্গে খবর পৌঁছে যাবে স্থানীয় পুলিশ স্টেশন এবং পরিবারের কাছে। এই অভিনব জুতোটির পেটেন্ট পাওয়ার জন্যে ইতোমধ্যে আবেদন করেছে সিদ্ধার্থ। পেটেন্ট হাতে এলেই শুরু হবে বাজারে যাচাই পর্ব। সেই মতো আগামীদিনে তার ডিজাইনে পরিবর্তন করবে সিদ্ধার্থ। ২০১২ সালে নির্ভয়ার সঙ্গে ঘটে যাওয়া নারকীয় ধর্ষণকাণ্ডের পরেই মেয়েদের সুরক্ষার জন্যে আত্মরক্ষার হাতিয়ার তৈরি করার ভাবনা মাথায় আসে সিদ্ধার্থ মন্ডলার। সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

0 comments:

Post a Comment