Last update
Loading...

বিদ্যুতে ব্যর্থ প্রকল্প বাতিলের সুপারিশ

প্রচণ্ড গরমে সারা দেশে বিদ্যুতের চাহিদা বেড়েছে। কিন্তু বেশ কয়েকটি বিদ্যুৎ প্রকল্প নির্ধারিত সময়ে উৎপাদনে যেতে না পারায় এ চাহিদা মেটানো সম্ভব হচ্ছে না। এ অবস্থায় সংসদীয় কমিটি নির্ধারিত সময়ে উৎপাদনে যেতে ব্যর্থ প্রকল্পগুলো বাতিলের সুপারিশ করেছে। এর আগে কমিটি ঘন ঘন লোডশেডিং নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে তিন দিনের মধ্যে বিদ্যুৎ সমস্যা সমাধানের জন্য নির্দেশ দিয়েছে। এ ছাড়া সংসদীয় কমিটি বিদ্যুতের উৎপাদন বাড়াতে গ্যাসের ওপর সব ধরনের ট্যাক্স ও ভ্যাট প্রত্যাহারের সুপারিশও করে। মঙ্গলবার সংসদ সচিবালয়ে বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে দেশের বিদ্যুৎ পরিস্থিতি নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়। তাজুল ইসলামের সভাপতিত্বে বৈঠকে কমিটির সদস্য বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ, হুইপ আতিউর রহমান আতিক,
মো. আবু জাহির, এম আবদুল লতিফ ও নাসিমা ফেরদৌসী এবং সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। বৈঠকে বর্তমান বিদ্যুৎ সংকটকে সাময়িক সমস্যা উল্লেখ করে তা নিরসনে জনপ্রতিনিধি ও সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের সব কর্মকর্তা-কর্মচারীকে সম্মিলিতভাবে সঠিক দায়িত্ব পালনের সুপারিশ করা হয়। বিশেষ করে আসন্ন মাহে রমজানে নিরবছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহ নিশ্চিত করার জন্য বলা হয়। এ ছাড়া বিদ্যুৎ সমস্যার স্থায়ী সমাধানের লক্ষ্যে আন্তঃমন্ত্রণালয় সভা আহ্বানের পরামর্শ দেয়া হয়। স্থায়ী সমাধানে সোলার প্লান্ট স্থাপনের ওপর গুরুত্বারোপ করা হয়। আর পথ নকশা অনুযায়ী বিদ্যুৎ প্রকল্পগুলো বাস্তবায়নে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে বলা হয়। বৈঠকে ২০১৮ সালের মধ্যে দেশের সর্বত্র বিদ্যুৎ সরবরাহ নিশ্চিত করার লক্ষ্যে সাব-কন্ট্রাক্ট না দিয়ে ঠিকাদারদের নিজস্ব লোকের মাধ্যমে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে পল্লী বিদ্যুৎ সংযোগ দেয়ার সুপারিশ করা হয়। আর কোনোক্রমেই বিদ্যুৎ সংযোগ দেয়ার কার্যাদেশ না বাড়ানোর জন্য বলা হয়।

0 comments:

Post a Comment