Last update
Loading...

বড়পুকুরিয়া দুর্নীতি মামলার রায় ২৮ মে

বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি দুর্নীতি মামলায় খালাস চেয়ে বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার আবেদনের শুনানি শেষ, আগামী ২৮ মে রায় দেয়া হবে। সোমবার প্রধান বিচারপতির এসকে সিনহার নেতৃত্বাধীন আপিল বেঞ্চ রায়ের এ দিন ধার্য করেন। আদালতে খালেদার পক্ষে শুনানি অ্যাডভোকেট এজে মোহাম্মদ আলী। দুদকের পক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট খুরশিদ আলম। মামলার বিবরণে জানা গেছে, বিগত তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আমলে ২০০৮ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারি খালেদা জিয়া এবং তার মন্ত্রিসভার ১০ সদস্যসহ ১৬ জনের বিরুদ্ধে বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি দুর্নীতি মামলা দায়ের করা হয়।
চীনা প্রতিষ্ঠান কনসোর্টিয়াম অব চায়না ন্যাশনাল মেশিনারিজ ইম্পোর্ট অ্যান্ড এক্সপোর্ট কর্পোরেশনের (সিএমসি) সঙ্গে বড়পুকুরিয়া কয়লা খনির উৎপাদন, ব্যবস্থাপনা ও রক্ষণাবেক্ষণ চুক্তির মধ্য দিয়ে রাষ্ট্রের প্রায় ১৫৮ কোটি ৭১ লাখ টাকার ক্ষতির অভিযোগ আনা হয় এ মামলায়। ওই বছর ৫ অক্টোবর ১৬ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র (চার্জশিট) দাখিল করে দুদক। পরে এ মামলার বৈধতা প্রশ্নে রিট করে করেন তিনি। ওই সময় হাইকোর্ট স্থগিতাদেশ দিয়ে রুল জারি করেন। পরে দুদকের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে উচ্চ আদালতের নির্দেশে ফের এ মামলা সচল হয়।

0 comments:

Post a Comment