Last update
Loading...

পরীক্ষার্থীকে অন্তর্বাস খুলতে বলায় ৪ শিক্ষক বরখাস্ত

ভারতে সদ্যসমাপ্ত জাতীয় মেডিকেল প্রবেশিকা পরীক্ষার দিন ‘অ্যান্টি চিটিং ড্রেস কোডে’র কথা বলে পরীক্ষা হলে ঢোকার আগে এনইইটি পরীক্ষার্থী ১৭ বছরেরে এক কিশোরীকে অন্তর্বাস খুলতে বলার ঘটনায় কেরলের চার স্কুলশিক্ষককে বরখাস্ত করা হয়েছে।  রোববার হওয়া ওই পরীক্ষায় প্রায় ১১ লাখ ছাত্রছাত্রী অংশ নিয়েছিল। কান্নুর জেলার একটি কলেজে রবিবার পরীক্ষার সিট পড়েছিল ওই ছাত্রীর। পরে কয়েকজন সাংবাদিককে খবর দিয়ে পরীক্ষার হলের বাইরে দাঁড়িয়ে তিনি জানান যে যখন হলে ঢুকতে যাচ্ছিলেন, তখন মেটাল ডিটেক্টরে ধরা পড়ে যে তার শরীরে কোনো ধাতব জিনিস রয়েছে। তিনি পরীক্ষা কেন্দ্রের তদারককারী কর্মীকে জানান যে, ওটা তার অন্তর্বাসের সঙ্গে থাকা ধাতব ক্লিপ। তখনই তাকে অন্তর্বাস খুলে ফেলে ভেতরে যেতে বলা হয় বলে ওই ছাত্রীর অভিযোগ। সামনে কোনো টয়লেট না থাকায় এক নারীকর্মীর সামনেই তিনি তাড়াতাড়ি অন্তর্বাস খুলে নেন।কানের দুল বা অন্য কোনও গয়না, পোশাকে বড় মাপের ধাতব বোতাম, পেন-পেন্সিল, জুতো, গাঢ় রঙের পোশাক, ফুল হাতা জামা - এসব ওই পরীক্ষার হলে নিষিদ্ধ। বিগত বছরগুলোতে মেডিকেল প্রবেশিকা পরীক্ষায় ব্যাপক হারে নকলবাজীর ঘটনার পর থেকে গত দুবছর এই নিষেধাজ্ঞা চালু হয়েছে। আর ওই নিয়ম কার্যকর করতে গিয়ে এবছর সারা দেশ থেকেই অনেক অভিযোগ এসেছে। কাউকে ফুলহাতা জামা কেটে হাফ হাতা করে নিতে হয়েছে, কাউকে জুতো খুলে অভিভাবকের চপ্পল পায়ে দিয়ে যেতে হয়েছে।

0 comments:

Post a Comment