Last update
Loading...

সিআইএ'র২০ এজেন্টকে 'হত্যা' করেছে চীন

চীনের বিভিন্ন বিষয়ে স্পর্শকাতর তথ্য পাচারের দায়ে ২০ জনকে কারারুদ্ধ বা হত্যার অভিযোগ উঠেছে। ধারণা করা হচ্ছে, ২০১০ থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত এ হত্যাকাণ্ড সংঘটিত হয়। খবর নিউ ইয়র্ক টাইমসের। সিআইএ সম্পৃক্ত ওই সব ব্যক্তিকে হত্যার পাশাপাশি যুক্তরাষ্ট্রের জন্য সংগৃহীত তথ্যও নষ্ট করে দেয়া হয়েছে বলে ওই রিপোর্টে বলা হয়। তবে তাদের তথ্য কীভাবে সামনে এল, বিষয়টি এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি। চীন কি তাদের গুরুত্বপূর্ণ তথ্য সংগ্রহকারীদের চিহ্নিত করেছিল না কি সিআইএ সার্ভার হ্যাক করার মাধ্যমে তথ্য পাচারকারীদের সম্পর্কে জেনেছিল তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।
সিআইএ এজেন্টদের মধ্যে একজনকে সরকারি কার্যালয়ের চত্বরে গুলি করে হত্যা করা হয়। আর এটা ছিল অন্যদের জন্য একটি কড়া বার্তা। তবে সিআইএ'র তরফ থেকে এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য মেলেনি। সিআইএ'র চার সাবেক কর্মকর্তা জানান, চীনের বিষয়ে নানা গুরুত্বপূর্ণ তথ্য সংগ্রহের জন্য এজেন্টদের ২০১০ সালে কাজে লাগানো হয়। তবে ২০১১ সালের দিক থেকে ডিপ কাভার এজেন্টদের কার্যক্রম অদৃশ্য কারণে বন্ধ হয়ে যেতে শুরু করে। তাদের আর তথ্য পাওয়া যায়নি। এছাড়া ২০১২ সালে চীনের নিরাপত্তা মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তাকে যুক্তরাষ্ট্রের হয়ে গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে আটক করা হয়। বিষয়টি তদন্তে সিআইএ এবং এফবিআই যৌথভাবে কাজ করছে বলে জানা গেছে।

0 comments:

Post a Comment