Last update
Loading...

নড়াইলে হাসপাতাল নির্মাণ কাজে ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবি : অস্ত্রসহ আটক ১

নড়াইল শহর সংলগ্ন বাঁশভিটা এলাকায় ৫০ শয্যা বিশিষ্ট ‘শুভ্রা মুখার্জি মেমোরিয়াল হাসপাতাল’ নির্মাণ কাজে ১০ লাখ টাকা চাঁদাবাজির অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল বুধবার (২৪ মে) দুপুরে নির্মাণাধীন হাসপাতাল চত্বরে চাঁদা দাবির ঘটনা ঘটে। এ সময় লিয়াকত আলী টিটো (৩৫) নামে এক ব্যক্তিকে রিভলবার ও দুই রাউন্ড গুলিসহ আটক করেছে পুলিশ। টিটো সদর উপজেলার ফেদী গ্রামের সৈয়দ আক্কাস আলীর ছেলে। বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে, নড়াইলের বাঁশভিটা এলাকায় শুভ্রা মুখার্জি মেমোরিয়াল হাসপাতাল নির্মাণের লক্ষ্যে প্রায় সাড়ে তিন মাস আগে সাত একর জমি কেনাসহ বালি ভরাটের কাজ শুরু হয়। বেঙ্গল গ্রুপ, শারমিন গ্রুপ ও লাবিব গ্রুপের উদ্যোগে ভারতের রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জির স্ত্রী নড়াইলের ভদ্রবিলা গ্রামের মেয়ে শুভ্রা মুখার্জির নামে এই হাসপাতালের নামকরণ করা হয়েছে। এদিকে, স্থানীয় পর্যায়ে হাসপাতালের নির্মাণ কাজ তদারকি করছেন নড়াইল পৌর এলাকার মহিষখোলা ও ভওয়াখালীর কয়েকজন ব্যক্তি। হাসপাতাল নির্মাণ কাজের সঙ্গে সংশ্লিষ্টরা বলেন, নির্মাণকারী প্রতিষ্ঠান বেঙ্গল গ্রুপের অডিট কর্মকর্তা কাজের অগ্রগতি ও বিল মেটাতে বুধবার সকালে নড়াইলে আসেন। বিষয়টি জানতে পেরে কয়েকজন ব্যক্তি ওই কর্মকতার কাছে ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে। দাবিকৃত টাকা দিতে অস্বীকার করলে তারা অস্ত্র বের করে ভয়ভীতি দেখায় এবং নির্মাণ কাজের সাথে সংশ্লিষ্ট কয়েকজনকে মারধর করে। এছাড়া হাসপাতালের সাইনবোর্ড ও গ্লাসঘর ভাংচুর এবং বালি ভরাটের ১০টি পাইপ কেটে ফেলেছে। এ সময় অস্ত্রসহ এক যুবককে ধরে পুলিশে দেয়া হয়। অভিযোগ করা হয়েছে, ছাত্রলীগের কয়েকজন নেতা এই ১০ লাখ টাকা দাবি করেন। এ ব্যাপারে জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আশরাফুজ্জামান মুকুল বলেন, শুভ্রা মুখার্জি হাসপাতালের নামে ক্রয়কৃত জমি ও জমির মূল্য নিয়ে জমির মালিকদের সাথে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সমস্যা চলছিল।
সৃষ্ট এই জটিলতা অবসানের লক্ষ্যে নড়াইল সরকারি ভিক্টোরিয়া কলেজ শাখা ছাত্রলীগ সভাপতি মনিরুজ্জামান রোজ ও সাধারণ সম্পাদক রাকিবুজ্জামান পলাশ বেঙ্গল ফাউন্ডেশনের কর্মকর্তার সঙ্গে কথা বলতে হাসপাতাল এলাকায় যান। এ সময় হাসপাতাল নির্মাণ কাজের সাথে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা ছাত্রলীগের দুই নেতাকে মারধর করে। চাঁদা দাবির অভিযোগ ঠিক নয়। এদিকে, ছাত্রলীগ নেতাদের আহত করার ঘটনায় সংগঠনের নেতাকর্মীদের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। তারা শহরের বিভিন্ন এলাকায় মহড়া দেয়। ক্যামেরায় এ দৃশ্য ধারণ করার সময় ছাত্রলীগের কয়েকজন নেতাকর্মী আরটিভির নড়াইল প্রতিনিধি মোস্তফা কামালের ক্যামেরা ভাংচুর এবং তাকে মারধর করে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। কামালকে সদর হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দেলোয়ার হোসেন জানান, এ ঘটনায় অস্ত্রসহ একব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। প্রসঙ্গত, নড়াইল-যশোর সড়কের পাশে বাঁশভিটা এলাকায় সাত একর জমির ওপর তিনতলা বিশিষ্ট শুভ্রা মুখার্জি মেমোরিয়াল হাসপাতাল নির্মাণের লক্ষ্যে গত ৭ ফেব্রুয়ারি হাসপাতালের নামফলক স্থাপন করা হয়। প্রথম পর্যায়ে তিনতলা এ হাসপাতালে ৫০টি শয্যা থাকবে। বেঙ্গল গ্রুপসহ কয়েকটি শিল্পগ্রুপের যৌথ উদ্যোগে হাসপাতালটি নির্মিত হচ্ছে। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন শুভ্রা মুখার্জি মেমোরিয়াল ট্রাস্টিবোর্ডের সদস্য বেঙ্গল গ্রুপ ও আরটিভির ভাইস-চেয়ারম্যান জসিম উদ্দিন, সাবেক সচিব মোহাম্মদ মুসা, শারমিন গ্রুপের চেয়ারম্যান ইসমাইল হুসাইন, লাবিব গ্রুপের চেয়ারম্যান সালাউদ্দিন আলমগীর, নড়াইল জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সোহরাব হোসেন বিশ্বাস, নড়াইল পৌরসভার মেয়র জাহাঙ্গীর হোসেন বিশ্বাস, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সুবাস চন্দ্র বোস, সাধারণ সম্পাদক নিজাম উদ্দিন খান, শুভ্রা মুখার্জির মামাতো ভাই কার্তিক ঘোষ প্রমুখ।

0 comments:

Post a Comment