Last update
Loading...

বগুড়ার ধানখেত থেকে খুলিসহ মানবদেহের হাড় উদ্ধার

বগুড়ার ধুনট উপজেলায় মাথার খুলি ও মানবদেহের ৯টি হাড় উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার বিকেল ৫টায় ধুনট সদরের বেলকুচি পশ্চিমপাড়ার একটি ধানখেত থেকে এগুলো উদ্ধার করা হয়। পুলিশ ও গ্রামবাসী সূত্রে জানা যায়, বেলকুচি গ্রামে মমতাজুর রহমানের জমি বর্গা নিয়ে চাষাবাদ করেন একই গ্রামের আলতাফ হোসেন। সোমবার সকালে ওই জমিতে ৬জন শ্রমিক ধান কাটা শুরু করেন। এক পর্যায়ে ধানখেতের মাঝখানে মাটি চাপা দেওয়া স্থান দেখতে পায় শ্রমিকরা। সেখান থেকে দুর্গন্ধ ছড়ানোর কারণে কোদাল দিয়ে মাটি গর্ত করতেই বেরিয়ে আসে হাড়। খবর পেয়ে বিকাল ৫টায় ঘটনাস্থলে পৌঁছে পুলিশ। পরে ওই গর্ত খুড়ে মাথার খুলি ও হাত-পায়েরসহ মানবদেহের ৯টি হাড় উদ্ধার করে। এসময় সেখানে পুরানো চেক লুঙ্গীও পায় পুলিশ। ধারণা করা হচ্ছে অন্যত্র হত্যা করে মাথার খুলি,
হাড়-হাড্ডি লুঙ্গীতে মুড়িয়ে এনে ধানখেতে পুঁতে রেখেছে ঘাতকরা। এদিকে চালাপাড়া গ্রামের নবা আকন্দের স্ত্রী সাহেরা খাতুন ওই হাড়-হাড্ডি তার নিখোঁজ স্বামীর বলে দাবী করছেন। সাহেরা খাতুন জানান, চালাপাড়ার মধ্যপাড়া গ্রামের হাফেজ আলী আকন্দের ছেলে নবা আকন্দ শতবর্ষী বৃদ্ধ। গত ১২ দিন যাবত তিনি নিখোঁজ রয়েছেন। ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার হওয়া লুঙ্গী নবা আকন্দের পরনে ছিল। ধুনট থানার ওসি মিজানুর রহমান জানান, ঘটনাস্থল থেকে মানবদেহের আকৃতির মাথার খুলি ও হাড়-হাড্ডি উদ্ধার করা হয়েছে। এগুলো ফরেনসিক বিভাগে পাঠিয়ে মানবদেহের কিনা পরীক্ষা করা হবে। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, মানবদেহের প্রমাণিত হওয়ার পর ডিএনএ পরীক্ষা ও অন্যান্য পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

0 comments:

Post a Comment