Last update
Loading...

ট্রাম্পের দেয়া গোপন তথ্য পুতিনকে এখনো জানানো হয়নি!

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প দেশটির ‘অতি গোপনীয়’ তথ্য রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভকে দিয়েছেন বলে যে খবর প্রচারিত হয়েছে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন তা কঠোর ভাষায় প্রত্যাখ্যান করেছেন। তিনি গণমাধ্যমে প্রকাশিত এ সংক্রান্ত খবরকে ‘রাজনৈতিক সিজোফ্রেনিয়া’ বলে আখ্যায়িত করেছেন। পুতিন বলেন, ট্রাম্পের সাথে ল্যাভরভের সাক্ষাতে সেদিন কি কথা হয়েছিল তার বিস্তারিত বিবরণ প্রকাশ করতে প্রস্তুত রয়েছে মস্কো। রাশিয়া সফররত ইতালির প্রধানমন্ত্রী পাওলো গেন্তিলোনির সাথে এক বৈঠকের পর যৌথ সংবাদ সম্মেলনে এ মন্তব্য করেন প্রেসিডেন্ট পুতিন। তিনি বলেন, “মার্কিন প্রশাসন যদি এটিকে সম্ভব মনে করে তাহলে আমরা সিনেট ও কংগ্রেসকে ল্যাভরভ এবং ট্রাম্পের মধ্যকার কথোপকথন লিখিত আকারে সরবরাহ করব।” রুশ প্রেসিডেন্ট বলেন, গণমাধ্যমে এ খবর প্রকাশিত হওয়ার পর আমেরিকায় ‘রাজনৈতিক সিজোফ্রেনিয়া’ ছড়িয়ে পড়ছে বলে মনে হচ্ছে। পুতিন ঠাট্টা করে বলেন, ল্যাভরভ সেই গোপন তথ্যটি এতদিন পর্যন্ত আমাকে এবং রুশ গোয়েন্দা সংস্থাগুলোকে জানাননি।
তিনি বলেন, “এটি তো খুব খারাপ কথা। ল্যাভরভকে তো একটা কানমলা দিতেই হয়।” প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প সম্প্রতি হোয়াইট হাউজে এক সাক্ষাতে রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী ল্যাভরভকে আইএস সম্পর্কে অতি গোপনীয় তথ্য সরবরাহ করেছেন বলে মার্কিন গণমাধ্যম অভিযোগ করেছে। সে অভিযোগ নিয়ে যখন ট্রাম্প বিপাকে রয়েছেন তখন তার পক্ষে কথা বললেন পুতিন। এর আগেও মার্কিন গণমাধ্যম যখন প্রেসিডেন্ট হওয়ার আগে ট্রাম্পের রাশিয়া সফর নিয়ে বিব্রতকর খবর প্রকাশ করেছিল তখনও পুতিন ট্রাম্পের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন। গত বছরের মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রাশিয়ার হস্তক্ষেপ ও সহযোগিতায় ট্রাম্প ক্ষমতায় এসেছেন বলে ব্যাপক জল্পনা রয়েছে এবং মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থাগুলো বিষয়টি তদন্ত করে দেখছে।

0 comments:

Post a Comment